কঠোর কর্মসূচি নিয়ে মাঠে নামতে হবে সাংবাদিকদের নেতাদের: মাহমুদুর রহমান

আপডেট: মে ৫, ২০১৮

 

নিজস্ব প্রতিবেদক:

দৈনিক আমার দেশ, দিগন্ত টেলিভিশনসহ সকল বন্ধ গণমাধ্য চালু করার দাবীতে সাংবাদিকদের ঐক্যবদ্ধভাবে দুর্বার আন্দোলন গড়ে তোলার আহবান জানিয়েছেন দৈনিক আমার দেশ প্রত্রিকার ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক মাহমুদুর রহমান। তিনি বলেন,ফ্যাসিবাদী সরকার গণমাধ্যমের স্বাধীনতা কেড়ে নিয়েছে। পরিকল্পিতভাবে দৈনিক আমার দেশ, দিগন্ত টেলিভিশন,চ্যানেল ওয়ান, ইসলামিক টেলিভিশনসহ অনেকগুলো অনলাইন নিউজ পোটাল বন্ধ করে দিয়েছে। আন্দোলনের কঠোর কর্মসূচি নিয়ে মাঠে নামতে হবে সাংবাদিকদের নেতাদের।

শনিবার ৫ মে দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবে ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়ন (ডিইউজে) নতুন কমিটি আয়োজিত ‘নির্বাচনোত্তর পুনমিলনী’ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মাহমুদুর রহমান এ আহবান জানান।

মাহমুদুর রহমান বলেন, এই সরকার গণমাধ্যমের স্বাধীনতা আর মানুষের গণতান্ত্রিক অধিকার কেড়ে নিয়েছে। গণমাধ্যমের স্বাধীনতা না থাকলে গণতন্ত্রও থাকে না। বাংলাদেশের গণতন্ত্র আজ দিল্লীর কাছে বন্দি রয়েছে। ইসলাম ও জাতীয়তাবাদী আদশের দেশপ্রেমিক এবং সাহসী সাংবাদিকদের নতুন নেতৃত্ব এবার সামনে চলে এসেছে। সাংবাদিকদের নেতাদের অধিকার প্রতিষ্ঠা,বন্ধ গণমাধ্যম খুলে দেয়া এবং গণতন্ত্রকে পুনরোদ্ধারের কঠোর কর্মসূচি নিয়ে আন্দোলনে নামতে হবে। মনে রাখতে হবে রাজপথের আন্দোলনের বিকল্প নেই।

বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের (বিএফইউজে) সাবেক সভাপতি ও বিএনপি ভাইস চেয়ারম্যান শওকত মাহমুদ বিশেষ অতিথির বক্তব্যে বলেন,ফ্যাসীবাদী সরকারের আমলে জাতীয় সংকট ক্রমান্বয়ে আরো জটিল আকার ধারণ করছে। সরকার গণমাধ্যমের স্বাধীনতা আর গণতন্ত্র কেড়ে নিয়েছে। সামনে আরো অনেক কঠিন পরিস্থিতির মোকাবেলা করতে হবে। বড় ধরনের লড়াইয়ের জন্য সাংবাদিক সমাজকেও প্রস্তুর থাকতে হবে।

বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের (বিএফইউজে) সভাপতি রুহুল আমিন গাজীর সভাপতিত্বে এবং ডিইউজের সাংগঠনিক সম্পাদক দিদারুল আলমের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে উদ্বোধনী ও শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের (ডিইউজে) সভাপতি কাদের গনি চৌধুরী, আরো বক্তব্য রাখেন বিএফইউজের মহাসচিব এম আবদুল্লাহ, সিনিয়র সাংবাদিক এরশাদ মজুমদার, ডিইউজের সাধারণ সম্পাদক শহিদুল ইসলাম, সাবেক সাধারণ সম্পাদক মুন্সি আবদুল মান্নান, ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির সাবেক সভাপতি শাখাওয়াত হোসেন বাদশাহ, জাতীয় প্রেসক্লাবের যুগ্ম সম্পাদক ইলিয়াস খান প্রমুখ। এ অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন ডিইউজের নতুন কমিটির কর্মকর্তারা, ঢাকা রিপোর্টার্স ইউনিটির সভাপতি সাইফুল ইসলাম,ডিইউজের অপর অংশের সভাপতি আবুজাফর সূর্য এবং শতাধিক সিনিয়র সাংবাদিক।

অনুষ্ঠানে বিভিন্ন মিডিয়ার পক্ষ থেকে ডিইউজের নতুন কমিটিকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানানো হয়েছে। পরে সাদা ভাত,গরুর মাংস, মুরগীর মাংস, ভুনাডাল এবং কুমিল্লার বিখ্যাত রসমালাই দিয়ে উপস্থিত সাংবাদিকদেরকে দুপুরে ভুড়িভোজ করানো হয়েছে।