দেশে পৌঁছেছে সুবীর নন্দীর মরদেহ

আপডেট: মে ৮, ২০১৯
0

খ্যাতিমান সংগীতশিল্পী সুবীর নন্দীর মরদেহ বুধবার সকালে সিঙ্গাপুর থেকে দেশে এসে পৌঁছেছে।

রিজেন্ট এয়ারওয়েজের একটি বিমানে বুধবার সকাল সাড়ে ৬টার দিকে তার মরদেহ ঢাকায় এসে পৌঁছায়। বিমানবন্দর থেকে তার মরদেহ নেয়া হয় ২৫সি গ্রিনরোডের গ্রিনভিউ অ্যাপার্টমেন্টে। সেখান থেকে নেয়া হয়েছে রাজধানীর ঢাকেশ্বরী মন্দিরে।

সকাল ১১টায় সর্বসাধারণের শ্রদ্ধা জানানোর জন্য নেয়া হবে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে। দুপুরে সবুজবাগে বরদেশ্বরী কালীমন্দির ও শ্মশানে কিংবদন্তি সংগীতশিল্পী সুবীর নন্দীর শেষকৃত্য অনুষ্ঠিত হবে।

সিঙ্গাপুরে চিকিৎসাধীন একুশে পদকপ্রাপ্ত এ সংগীতশিল্পী মঙ্গলবার বাংলাদেশ সময় ভোর সাড়ে চারটায় মারা যান। ১৮ দিন ঢাকার সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) চিকিৎসাধীন থাকার পর গত ৩০শে এপ্রিল সিঙ্গাপুরে নেয়া হয় সুবীর নন্দীকে। তিনি দীর্ঘদিন ধরে কিডনি ও হৃদরোগে ভুগছিলেন।
৪০ বছরের দীর্ঘ ক্যারিয়ারে আড়াই হাজারেরও বেশি গান গেয়েছেন সুবীর নন্দী।

তিনি প্রথম প্লেব্যাক করেন ১৯৭৬ সালে আবদুস সামাদ পরিচালিত ‘সূর্যগ্রহণ’ চলচ্চিত্রে। প্লেব্যাক করে পাঁচবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার অর্জন করেছেন তিনি। তার গাওয়া উল্লেখযোগ্য গানের মধ্যে রয়েছে ‘দিন যায় কথা থাকে’, আমার এ দুটি চোখ পাথর তো নয়’, ‘পৃথিবীতে প্রেম বলে কিছু নেই’, ‘আশা ছিল মনে মনে’, ‘হাজার মনের কাছে প্রশ্ন রেখে’, ‘বন্ধু তোর বারাত নিয়া’, ‘বন্ধু হতে চেয়ে তোমার’, ‘কতো যে তোমাকে বেসেছি ভালো’, ‘পাহাড়ের কান্না দেখে’, ‘আমি বৃষ্টির কাছ থেকে কাঁদতে শিখেছি’, ‘কেন ভালোবাসা হারিয়ে যায়’, একটা ছিল সোনার কন্যা’, ‘ও আমার উড়াল পঙ্খীরে’সহ অসংখ্য গান। তার প্রথম একক অ্যালবাম ‘সুবীর নন্দীর গান’ বাজারে আসে ১৯৮১ সালে। ‘প্রেম বলে কিছু নেই’, ‘ভালোবাসা কখনো মরে না’, ‘সুরের ভুবনে’, ‘গানের সুরে আমায় পাবে’ ছাড়াও ‘প্রণামাঞ্জলী’ নামে একটি ভক্তিমূলক গানের অ্যালবাম রয়েছে এ শিল্পীর।

LEAVE A REPLY