সৎ যোগ্য ও জনকল্যাণে নিবেদিত প্রার্থীকে ভোট দিয়ে জয়ী করার শপথ– সুজন

আপডেট: অক্টোবর ১১, ২০১৮

খুলনা সংবাদদাতাঃ
খুলনার বিভিন্ন কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রায় দু’শতাধীক শিক্ষার্থী শপথ নিয়েছেন, তারা তরুণ ভোটার। সৎ যোগ্য ও জনকল্যাণে নিবেদিত প্রার্থীকে ভোট দিয়ে জয়ী করবে। যারা দেশ ও দশের কল্যাণে কাজ করে তাদের পাশে থাকবে। অসৎ অযোগ্য ক্ষমতার অপব্যবহারকারী প্রার্থীকে তারা বয়কট করবে। নাগরিক চেতনাবোধে উদ্বুদ্ধ তরুনরাই গণতান্ত্রিক ও সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গড়ার ভবিষ্যৎ কারিগর শীর্ষক নির্বাচনী অলিম্পিয়াড অনুষ্ঠানে শিক্ষার্থীরা এমনই শপথ নেন। আজ বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০টায় দৌলতপুর ৫নং ওয়ার্ড কমিউনিটি সেন্টারে সুশাসনের জন্য নাগরিক সুজন নির্বাচনী অলিম্পিয়ার্ড -এর আয়োজক। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন সুজন জেলা কমিটির সভাপতি বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ অধ্যক্ষ জাফর ইমাম। ইয়ুথ খুলনার সমন্বয়কারী লুবাইনা সুলতানার পরিচালনায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন সুজন বিভাগীয় সমনবয়কারী মাসুদুর রহমান রঞ্জু এবং অনুষ্ঠানের উদ্দেশ্যে বর্ণনা করেন সুজন জেলা কমিটির সম্পাতক এড. কুদরৎ ই খুদা। অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন পিস পেশার গ্রুপের (পেভ) এ্যাম্বাসেডর নিজাম উর রহমান লালু, সুজন খালিশপুর থাান কমিটির সভাপতি সৈয়দ মোসাদ্দেক হোসেন বাবলু, সাধারণ সম্পাদক খলিলুর রহমান সুমন ও জেলা সমন্বয়কারী পলাশ মন্ডল। সভায় আসন্ন সংসদ নির্বাচনে সৎ যোগ্য জনকল্যাণে নিবেদিত প্রার্থীকে ভোট দিয়ে জয়ী করার আহবান জানানো হয়। অনুষ্ঠানে বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রায় দু’ শত শিক্ষার্থী ৩০ মিনিটের লিখিত পরীক্ষায় অংশ নেয়। এর মধ্যে ১০জনকে বিজয়ী হিসেবে পুরস্কৃত করা হয়। এছাড়া বিজয়ী তিনজনকে রানার্স আপ ও চ্যাম্পিয়ান ঘোষণা করা হয়। এর মধ্যে রানার্স আপ হওয়ার গেীরব অর্জন করে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী সাদিয়া আফরোজ রিক্তা ও বিএল কলেজের শিক্ষার্থী ইয়াসিন শেখ। চ্যাম্পিয়ান হওয়ার গৌরব অর্জন করেন সরকারি সুন্দরবন আদর্শ মহাবিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী মাহমুদ শিকদার। তিনি ৫০ মার্কের মধ্যে ৩২ মার্ক পেয়ে পরীক্ষায় প্রথম স্থান অধিকার করেন। এ তিনজন ঢাকায় অনুষ্ঠিতব্য জাতীয়ভাবে নির্বাচনী অলিম্পিয়ার্ড অনুষ্ঠানে অংশ গ্রহণের সুযোগ পাবে। ওই অনুষ্ঠানে সারা দেশ থেকে আগত বিজয়ী শিক্ষার্থীরা অংশ নিবেন।