চারঘাটের পদ্মায় প্রত্যাশিত ইলিশ মিলছে না, হতাশ জেলেরা

আপডেট: নভেম্বর ৭, ২০২০
0

আবু সুফিয়ান, চারঘাটঃ ইলিশ শিকারে ২২ দিনের নিষেধাজ্ঞা শেষ হয়েছে গত বুধবার মধ্যরাতে। জেলেরাও নেমে পড়েছেন জাল-নৌকা নিয়ে। কিন্তু রাজশাহীর চারঘাটের পদ্মা নদীতে প্রত্যাশিত ইলিশ মিলছে না। দু-চারটা জাটকা ছাড়া বড় ইলিশ নেই।

অন্যদিকে নিষেধাজ্ঞা শেষে ইলিশ কেনার আশায় উপজেলার নদীর পাড়সহ বাজারে ভিড় করছেন ক্রেতারা। কিন্তু মাছ না পেয়ে তারাও হতাশ।

জেলেরা জানিয়েছেন, এমন চিত্র এবারই প্রথম দেখছেন তারা। আগের বছরগুলোতে নিষেধাজ্ঞা শেষে প্রচুর ইলিশ পাওয়া যেত। কখনও কখনও দেখা গেছে, নিষেধাজ্ঞা শেষেও ইলিশের পেটে ডিম। কিন্তু এবার বড় ইলিশ নেই। ইলিশ এখনও জাটকা হয়েই আছে। তাও পরিমাণে খুব কম।

কথা হয় জেলে মামুম আলীর সঙ্গে। তিনি বলেন, পদ্মায় যত বেশি স্রোত থাকে, তত বেশি ইলিশ ধরা পড়ে। কিন্তু এবার চারঘাটের পদ্মায় স্রোত না থাকায় ইলিশ মাছ একেবারে নেই বললেই চলে। সারারাত জেগে থেকে কয়েকটা জাটকা ইলিশ পেয়েছি।

এদিকে পদ্মার পাড়ে ও বাজারে ইলিশ মাছ কিনতে আসা কয়েকজন বলেন, অভিযান শেষ হওয়ার পর ভেবেছিলাম মাছ অনেক ইলিশ আমদানি হবে। কিন্তু এসে দেখলাম, নদীর পাড় কিংবা বাজার কোথাও ইলিশ মাছ তেমন নেই। ক্রেতা অনেক। ফলে মাছের দামও আকাশছোঁয়া।

স্থানীয় মাছ ব্যবসায়ী আব্দুল মাজেদ বলেন, চারঘাট-বাঘার পদ্মায় প্রতি বছর যে পরিমাণ ইলিশ ধরা পড়ে, এবার তার অর্ধেকও ধরা পড়ছে না। আমরা ছোট ব্যাবসায়ীরা নদীর পাড় থেকে কিনে বাজারে বিক্রি করি। মাছ না থাকার কারণে আমরা ব্যবসা করতে পারছি না।

মা ইলিশ রক্ষায় ১৪ অক্টোবর থেকে ৪ নভেম্বর পর্যন্ত ২২ দিন ইলিশ শিকার নিষিদ্ধ ছিল। গত কয়েক বছর ধরে ইলিশ মাছের প্রজনন নির্বিঘ্ন করতে এই নিষেধাজ্ঞা আরোপ করছে সরকার। এ সময় সরকারের পক্ষ থেকে জেলেদের বিভিন্নভাবে প্রণোদনা দেয়া হয়। যদিও চারঘাটের অনেক জেলে সরকারি কোনো সহযোগিতা পাননি বলে জানিয়েছেন।

LEAVE A REPLY