বিএনপির ত্রাণ বিতরনের সময় হামলায় জড়িতদের বিচার চান মীর্জা ফখরুল

আপডেট: জুন ১, ২০২০
0

নিজস্ব প্রতিবেদক: বাংলাদেশসহ বিশ্বব্যাপী করোনা ভাইরাসের মহাদুর্যোগময় সময়ে বিএনপি জাতীয় নির্বাহী কমিটির সহ-আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক ও গত জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার আসন থেকে ধানের শীষের প্রার্থী নজরুল ইসলাম আজাদ আজ নেতাকর্মীদের সাথে নিয়ে গরীব ও দুস্থদের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করতে গেলে স্থানীয় আওয়ামী সন্ত্রাসীরা তাদের ওপর সশস্ত্র হামলা চালায়।

হামলায় নজরুল ইসলাম আজাদসহ বেশ কয়েকজন নেতাকর্মী আহত হন। গুরুতর আহত নজরুল ইসলাম আজাদ বর্তমানে রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন। সন্ত্রাসীদের দ্বারা সংঘটিত এই ন্যাক্কারজনক হামলা ও নেতাকর্মীদের আহত করার ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

আজ এক বিবৃতিতে বিএনপি মহাসচিব বলেন, “করোনা ভাইরাসের দুর্যোগকালীন সময়ে দেশে যখন দুর্ভিক্ষাবস্থা বিরাজ করছে তখন ক্ষুধার্ত ও নিরন্ন মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে বিএনপি এবং এর অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনগুলো ত্রাণ কার্যক্রম অব্যাহত রাখায় সেই মানবিক কাজটিকে কোনভাবেই সহ্য করতে পারছে না বর্তমান হিংসাশ্রয়ী সরকার। তাই দলীয় লোকজনদেরকে দিয়ে বিএনপি নেতাকর্মীদের ওপর হিংস্র আচরণ চালানো হচ্ছে। বিএনপি নেতাকর্মীদের এই জনহিতকর কাজে আওয়ামী সন্ত্রাসীদের হামলা নিঃসন্দেহে চলমান দু:শাসনেরই ভয়াবহ নজীর।

ক্ষমতাসীন দল কর্তৃক এধরণের পৈশাচিক হামলা ও ন্যাক্কারজনক অপকর্মের কারণেই করোনা মহামারীর এই সংকটময় সময়ে দেশ আরও গভীর অনিশ্চয়তার অন্ধকারে ডুবে যাচ্ছে। এই করোনা মহামারীর মধ্যে গরীব ও ছিন্নমূল মানুষের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণে সরকারী দলের সন্ত্রাসীদের হামলা অশুভ ইঙ্গিতই বহন করে।

আওয়ামী সন্ত্রাসীদের দ্বারা নজরুল ইসলাম আজাদসহ কয়েকজন নেতাকর্মীকে আহত করার অমানবিক ও জঘন্য আচরণের ঘটনায় আমি ধিক্কার জানাচ্ছি এবং অবিলম্বে দোষীদের গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির জোর দাবি করছি। হাসপাতালে চিকিৎসাধীন গুরুতর আহত নজরুল ইসলাম আজাদসহ আহত অন্যান্য নেতাকর্মীদের আশু সুস্থতা কামনা করছি।

LEAVE A REPLY